Muntakhab Hadith

 
 
SIFAT
Ikhlas  
SECTION
Sincerity of Intention  
Type
Hadith  
SERIAL NUMBER
7  
الحديث فى العربى
عَنْ أَبِىْ هُرَيْرَةَ رَضِىَ اللهُ عَنْهُ أَنَّ رَسُوْلَ اللهِ ﷺ قَالَ : رَجُلٌ : لأَ تَصَدَّقَنَّ بِصَدَقَةٍ ، فَخَرَجَ بِصَدَقَتِهِ فَوَضَعَهَا فِىْ يَدِ سَارِقٍ فَأَصْبَحُوْا يَتَحَدَّثُوْنَ ، تُصَدَّقَ عَلىٰ سَارِقٍ فَقَالَ : اللهُمَّ لَكَ الْحَمْدُ لأَتَصَدَّقَنَّ بصَدَقَةٍ ، فَخَرَجَ بِصَدَقَتِهِ فَوَضَعَهَا يَدِ زَانِيَةٍ ، فَأَصْبَحُوا يَتَحَدَّثُوْنَ : تُصُدِّقَ اللَّيْلَةَ عَلىٰ زَانِيَةٍ ، فَقَالَ : اللهُمَّ لَكَ الْحَمْدُ ، عَلىٰ زَانِيَةٍ ، لأَتَصَدَّقَنَّ بِصَدَقَةٍ ، فَخَرَجَ بِصَدَقَتِهِ فَوَضَعَهَا فِىْ يَدِغَنِىٍّ ، فَأَصْبَحُوْا يَتَحَدَّثُوْنَ : تُصَدِّقَ عَلىٰ غَنِىٍّ ، فَقَالَ : اللهُمَّ لَكَ الْحَمْدُ عَلىٰ سَرِقٍ ، فَلَعَلَّهُ أَنْ يَسْتَعِفَّ عَنْ سَرِقَتِهِ ، وَأَمَّا الزَّانِيَةُ فَلَعَلَّهَا أَنْ تَسْعِفَّ عَنْ زِنَاهَا وَأَمَّا الْغَنِىُّ فَلَعَلَّهُ أَنْ يَعْتَبِرَ فَيُنْفِقَ مِمَّا أَعْطَاهُ اللهُ . ( رواه البخارى ، باب اذا تصدق على غن ..... ، رقم : )  
হাদিস বাংলা
হযরত আবু হুরইরহ রদিয়াল্লহু আ’নহু (أبىْ هريْرة رضى الله عنْه) হইতে বর্ণিত আছে যে, রসুলুল্লহ সল্লাল্লহু আ’লাইহি ওয়া সাল্লাম এরশাদ করিয়াছেন, (বনী ইসরাইলের) এক ব্যক্তি (মনে মনে) বলিল, আমি আজ (রাতে গোপনে) ছদকা করিব। সুতরাং (রাতে গোপনে সদকার মাল লইয়া বাহির হইল এবং অজ্ঞাতসারে) এক চোরের হাতে দিয়া দিল। সকালে লোকজনের মধ্যে আলোচনা হইল (যে, রাতে) চোরকে সদকা দেওয়া হইয়াছে। সদকা দানকারী বলিল, হে আল্লহ! (চোরকে সদকা দেওয়ার মধ্যেও) আপনার জন্যই প্রশংসা। (কেননা, তাহার অপেক্ষা আরও বেশি খারাপ মানুষকে যদি দেওয়া হইত তবে আমি কি করিতে পারিতাম।) অতঃপর সে দৃঢ় সংকল্প করিল যে, আজ রাত্রে(ও) অবশ্যই আমি সদকা করিব। (কেননা, পূর্বের সদকা তো নষ্ট হইয়া গিয়াছে) সুতরাং রাত্রে সদকার মাল লইয়া বাহির হইল এবং (অজ্ঞাতসারে) সদকা একজন ব্যাভিচারিণী মেয়েলোককে দিয়া দিল। সকালে আলোচনা হইল যে, আজ রাত্রে ব্যাভিচারিণী মেয়েলোককে সদকা দেওয়া হইয়াছে। সে বলিল, হে আল্লহ! ব্যাভিচারিণী মেয়েলোককে সদকা দেওয়ার মধ্যেও আপনার জন্যই প্রশংসা। (কেননা, আমার মাল তো এই উপযুক্তও ছিল না।) অতঃপর (তৃতীয়বার) ইচ্ছা করিল যে, আজ রাত্রে অবশ্যই সদকা করিব। অতএব, রাত্রে সদকার মাল লইয়া বাহির হইল এবং উহা একজন ধনী ব্যক্তির হাতে দিয়া দিল। সকালে আলোচনা হইল যে, রাত্রে একজন ধনী ব্যক্তিকে সদকা দেওয়া হইয়াছে। সদকা দানকারী বলিল, হে আল্লহ! চোর, ব্যাভিচারিণী মেয়েলোক ও ধনী ব্যক্তিকে সদকা দেওয়ার উপর আপনারই প্রশংসা। (কেননা, আমার মাল তো এরূপ লোকদের দেওয়ার উপযুক্তও ছিল না।) স্বপ্নে বলিয়া দেওয়া হইল যে, (তোমার সদকা কবুল হইয়া গিয়াছে।) তোমার সদকা চোরের উপর এইজন্য করানো হইয়াছে যে, হইতে পারে সে চুরির অভ্যাস হইতে তওবা করিয়া লইবে, ব্যাভিচারিণী মেয়েলোকের উপর এইজন্য যে, হইতে পারে সে ব্যাভিচার হইতে তওবা করিয়া লইবে (যখন সে দেখিবে যে, ব্যাভিচার ছাড়াও আল্লহ তায়া’লা দান করেন, তখন তাহার অনুভুতি আসিবে) আর ধনীর উপর এইজন্য, যাহাতে সে শিক্ষা লাভ করে (যে, আল্লহ তায়া’লার বান্দারা কিরূপে গোপনে সদকা করে; এই কারণে) হইতে পারে সেও ঐ সমস্ত মাল হইতে যাহা আল্লহ তায়া’লা তাহাকে দান করিয়াছেন, আল্লহ তায়া’লার পথে খরচ করিতে আরম্ভ করিবে। (বুখারী)   
HADITH ENGLISH
Abu Hurairah Radiyallahu 'anhu narrates that Rasulullah Sallallahu 'alaihi wasallam said: A man said indeed I will give Sadaqah (quietly)! He came out with his Sadaqah and placed it in the hands of a thief. In the morning people began to talk and say: Sadaqah was given to a thief. The man said: O Allah! All praise is for You, I will indeed give Sadaqah. And he came out with Sadaqah and placed it in the hands of an adulteress. In the morning people began to talk and say Sadaqah was given to an adulteress last night. The man said: O Allah! All praise is for You, in giving Sadaqah to an adulteress. I will surely give Sadaqah. He came out with Sadaqah and placed it in the hands of a rich man. In the morning people began to talk and say: Sadaqah was given to a rich man. The man said: O Allah! All praise is for You in giving Sadaqah to a thief, an adulteress and a rich man. He then had a dream in which he was told that his .Sadaqah which was made to be given to a thief, may perhaps result in his refraining from stealing, to the adulteress, so that she may perhaps refrain from adultery, and to the rich man so that he may perhaps pay heed and spend from what Allah had given him. (Bukhari)  
 
 
 
previous   Next